বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৫:৩৩ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা: ঈশ্বরদীর লক্ষীকুন্ডায় দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত কমপক্ষে ১৫ ইউপি নির্বাচনে পাকশী ১ নং ওয়ার্ডে মুক্তার মন্ডল মেম্বার নির্বাচিত হওয়ায় এলাকাবাসীর শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন রাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচনে হলুদ প্যানেলের জয়-জয়কার সলিমপুরে (৪,৫,৬) আসনের মহিলা মেম্বার প্রার্থী বীনা বেগম জনপ্রিয়তায় সবার চেয়ে এগিয়ে উন্নয়ন,সমৃদ্ধি,অগ্রগতির গতিধারা অব্যাহত রাখতে নৌকায় ভোট দিন: তৌহিদুজ্জামান দোলন বিশ্বাস গ্রামে গ্রামে নৌকার পক্ষে ভোট চাইলেন যুবনেতা তৌহিদুজ্জামান দোলন বিশ্বাস লক্ষীকুন্ডায় মোরগ মার্কার নির্বাচনী মিছিল করলেন জনপ্রিয় মেম্বার আকরাম আলী মোল্লা ঈশ্বরদীতে আমন ধান ও চাল সংগ্রহ কার্যক্রমের উদ্বোধন সলিমপুর-সাহাপুরে নৌকার পক্ষে ভোট চাইলেন যুবনেতা তৌহিদুজ্জামান দোলন বিশ্বাস সলিমপুরের ৯ নং ওয়ার্ডে জনপ্রিয়তার শীর্ষে (মোরগ প্রতিকের) মেম্বার প্রার্থী বাবু বিশ্বাস

কুষ্টিয়ায় হত্যা মামলায় ২ জনের আমৃত্যু, ১ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি / ১২৬ বার পঠিত
আপডেট : শুক্রবার, ২২ অক্টোবর, ২০২১, ৩:০৯ অপরাহ্ণ

কুষ্টিয়া দৌলতপুর উপজেলায় টাকা লেনদেনকে কেন্দ্র করে আজম নামে এক যুবককে মারপিট ও শ্বাসরোধ করে হত্যার ঘটনায় দুই আসামিকে আমৃত্যু কারাদণ্ড ও একজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। একই সঙ্গে তাদের ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকেলের দিকে কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. তাজুল ইসলাম এ রায় দেন।

আমৃত্যু কারাদণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামি হলেন- কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের আড়িয়া গ্রামের মন্ডলপাড়ার কাইমুদ্দিনের ছেলে স্বপন এবং একই এলাকার পলান মিস্ত্রির ছেলে ইশারাত মন্ডল। তারা দুজনই পলাতক রয়েছে।

এই হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আসকর আলী একই এলাকার পলান মিস্ত্রির ছেলে। রায় ঘোষণার সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন আসকর আলী।

২০১৪ সালের ৪ সেপ্টেম্বর রাতে টাকা লেনদেনকে কেন্দ্র করে মারপিট ও শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে আসামিরা। হত্যাকাণ্ডের পর দৌলতপুর উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের দিঘলকান্দি গ্রামের মাঠের একটি ধানক্ষেতে আজমের লাশ মাটির নিচে পুঁতে রাখে। পরের দিন ৫ সেপ্টেম্বর দুপুরে দৌলতপুর থানা পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়। ৬ সেপ্টেম্বর মৃতের বাবা আড়িয়া গ্রামের বাসিন্দা এজের আলী বাদী হয়ে স্বপন, ইশারাত মন্ডল ও আসকর আলীসহ অজ্ঞাত ৪-৫ জনকে আসামি করে মামলা করেন।

মামলার তদন্ত শেষে ২০১৪ সালের ১৫ ডিসেম্বর সিআইডি পুলিশের পরিদর্শক আকিদুল ইসলাম আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে ২১ অক্টোবর রায় ঘোষণার দিন ধার্য করে আদালত। এ মামলায় ২০ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে বৃহস্পতিবার আদালত এ রায় দেন। রায় ঘোষণার পরপরই দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আসকর আলীকে পুলিশ পাহারায় জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।

এদিকে আজমের স্বজনরা রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। তার স্বজনরা বলেন, আজমকে মারপিট ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করে আসামিরা। ছয় বছর আদালতে মামলার কার্যক্রম শেষে দুই আসামিকে আমৃত্যু কারাদণ্ড ও একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত। এ রায়ে আমরা খুবই খুশি।

আদালতের পিপি অনুপ কুমার নন্দী বলেন, হত্যা মামলায় দোষী প্রমাণিত হওয়ায় দুই আসামিকে আমৃত্যু কারাদণ্ড ও একজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। একই সঙ্গে তাদের ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

এক ক্লিকে বিভাগের খবর
Bengali Bengali English English Russian Russian
error: Content is protected !!
Bengali Bengali English English Russian Russian
error: Content is protected !!